হয়ে ওঠো একজন প্রবলেম সলভার

Buy Now

প্রাপ্তিস্থান

অনলাইন এবং ফেসবুকে সারাদেশে হোম ডেলিভারি
দ্বিমিক প্রকাশনী, ফোন: ০১৭০৭ ৯৬ ০৩ ৭২ (যোগাযোগ ও বিকাশ)

রকমারি ডট কম, ফোন: ১৬২৯৭
দারাজ ডট কম ডট বিডি, ফোন: ১৬৪৯২

ঢাকা
হক লাইব্রেরী, নীলক্ষেত, ঢাকা, ফোন: ০১৮২০-১৫৭১৮১
মানিক লাইব্রেরী, নীলক্ষেত, ঢাকা, ফোন: ০১৭৩৫-৭৪২৯০৮
রানা বুক পাবলিশার্স, নীলক্ষেত, ঢাকা, ফোন: ০১৬২৩-০৫৮৪২৮
বাতিঘর ঢাকা, বিশ্বসাহিত্যকেন্দ্র, বাংলামটর।

চট্টগ্রাম
বাতিঘর, প্রেস ক্লাব ভবন, জামালখান রোড, চট্টগ্রাম।

বরিশাল
বুক ভিলা, বিবিরপুকুর পাড়।

রাজশাহী
বুক পয়েন্ট, সোনাদীঘির মোড়, রাজশাহী।


লেখকের কথা

“তুমি কি একজন প্রবলেম সলভার?” – এই প্রশ্ন নিয়েই আমাদের বইটি লেখার সূচনা। আর “তুমি কীভাবে একজন প্রবলেম সলভার হয়ে উঠবে?” – পুরো বই জুড়ে আমরা এর উত্তর খোঁজার চেষ্টা করেছি।

তুমি যদি সায়েন্স প্রজেক্ট, অটোমেশন, আরডুইনো, রোবোটিক্স বা আইওটি নিয়ে কাজ করতে চাও, তোমার জন্য এই বইটি অপরিহার্য। তুমি নিশ্চয়ই খেয়াল করেছ, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে প্রযুক্তি খাতে বাংলাদেশের ছেলেমেয়েরা প্রচুর ইনোভেশন (Innovation) দেখাচ্ছে। বাংলাদেশের ইলেক্ট্রনিক্স এবং হার্ডওয়্যার ইন্ডাস্ট্রিতে একটি বড়ো সম্ভাবনা নিয়ে এসেছে অটোমেশন (Automation), আইওটি (Internet of Things – IoT) এবং রোবোটিক্স (Robotics)। তবুও অনেকে আড়ষ্ট ধারণা নিয়ে আছে যে হার্ডওয়্যারের কাজ কঠিন এবং ব্যয়বহুল। আমাদের বিশ্বাস, এই বইটি পড়লে তোমার এই ধারণা বদলে যাবে। আবার তুমি যদি প্রোগ্রামিং নিয়ে টুকটাক কাজ করে থাকো, আরডুইনো তোমার সেই প্রোগ্রামিংয়ের মজাকে কয়েক হাজার গুণ বাড়িয়ে দেবে। কেননা পুরো বইতেই আমরা কাজ করেছি Software-Hardware Integration নিয়ে।

বইটি স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় – সব শ্রেণির ছাত্রছাত্রীদের উপযোগী করে লেখা। প্রোগ্রামিং সম্পর্কে সামান্য ধারণা থাকলে বইটি পড়ার সময় বাড়তি সুবিধা পাবে। তুমি যদি স্কুলের হয়ে থাকো, এই বইটি পড়ার পাশাপাশি আরডুইনোতে হাতেখড়ি পড়ে নিলে এই বইটি পড়তে কঠিন মনে হবে না। স্কুল কলেজকে মূল উদ্দেশ্য করে লেখা হলেও বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীরা এই বইটি থেকে সর্বোচ্চ আনন্দ পাবে বলে আমাদের বিশ্বাস। এছাড়াও পলিটেকনিকের শিক্ষার্থীরা, আন্তর্জাতিক রোবটিক্স অলিম্পিয়াডে অংশগ্রহণকারীরা এবং তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের পরিচালিত রোবোটিক্স ও আইওটি কোর্সের শিক্ষার্থীরাও নিজেদের প্রজেক্টের কাজে এই বই থেকে প্রচুর সহায়তা পাবে।
এই বইতে আমরা আরডুইনোকে গভীরভাবে বোঝার চেষ্টা করেছি। নতুন নতুন সেন্সর, মডিউল, শিল্ড, মোটর, অ্যাকচুয়েটর, কমিউনিকেশন ডিভাইস নিয়ে কাজ করেছি। তবে এই বইতে আমরা নিছক আরডুইনো, আইওটি বা রোবোটিক্স শেখায় জোর দিইনি। বরং আমরা জোর দিয়েছি সমস্যা সমাধানের দক্ষতা (Problem Solving Skill) বৃদ্ধিতে। আর আরডুইনোকে আমরা নিয়েছি সমস্যা সমাধানের একটি টুল (Problem Solving Tool) হিসেবে। পাশাপাশি আমরা ডিজাইন থিঙ্কিং, ইউজার সেন্ট্রিক ডিজাইন, প্রোটোটাইপিং এবং প্রোডাক্ট ডিজাইনের মতো বিষয়গুলো নিয়েও কথা বলেছি।

আমাদের বিশ্বাস, বইটি পড়ার পর পাঠকের চিন্তাজগতে পরিবর্তন আসবে। সমস্যা সমাধানের মানসিকতা সৃষ্টি হবে। যেকোনো বাস্তব-জীবন সমস্যায় পাঠক কম্পিউটার হার্ডওয়্যারভিত্তিক সমাধান সৃষ্টিতে নিজেকে প্রস্তুত মনে করবে।

প্রবলেম সলভার তরুণ-তরুণীদের হাতেই গড়ে উঠুক সমৃদ্ধির বাংলাদেশ।

মুনেম শাহরিয়ার

রুহুল আমীন,

জানুয়ারী ২০১৯,
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়।

সূচীপত্র

ভূমিকা

লেখক পরিচিতি

লেখকের কথা

অধ্যায় ১ – সমস্যা এবং তুমি

অধ্যায় ২ – সমস্যা সমাধানের কিছু টুল

অধ্যায় ৩ – আরডুইনোতে বাজনা বাজাই

অধ্যায় ৪ – ডিজিটালে অ্যানালগ ছোঁয়া

অধ্যায় ৫ – গরিবের বন্ধু টিংকারক্যাড

অধ্যায় ৬ – সেন্সরের জগত

অধ্যায় ৭ – যা জানা প্রয়োজন – প্রোটোকল!

অধ্যায় ৮ – ডিসপ্লে! ডিসপ্লে!

অধ্যায় ৯ – ইউজার ইনপুট

অধ্যায় ১০ – ডেটা লগার ও সম্ভাবনা

অধ্যায় ১১ – চলো সময়কে ধরি

অধ্যায় ১২ – ডেটাশিট পড়ার উপায়

অধ্যায় ১৩ – তার ছেঁড়া বেতার

অধ্যায় ১৪ – মোটরের কলকব্জা

অধ্যায় ১৫ – পানির সঙ্গে প্রবলেম সলভিং

অধ্যায় ১৬ – হাই ভোল্টেজ নিয়ে কাজ!

অধ্যায় ১৭ – আইওটিতে হাতেখড়ি

অধ্যায় ১৮ – প্রসেসিংয়ে হাতেখড়ি

অধ্যায় ১৯ – হাতে বানাই আরডুইনো

অধ্যায় ২০ – প্রোডাক্ট ডিজাইনের যত কথা

অধ্যায় ২১ – হ্যাকিং মাইন্ডসেট

অধ্যায় ২২ – শখের রোবটিক্স

অধ্যায় ২৩ – জেগে স্বপ্ন দেখি

অধ্যায় ২৪ – যা বলা হলো না

অধ্যায় ২৫ – আরডুইনো কমিউনিটি বাংলাদেশ

অধ্যায় ২৬ – তথ্যসূত্র

অধ্যায় ২৭ – কেনাকিনি

অধ্যায় ২৮ – শেষ হইয়াও হইলো না শেষ

বইয়ের বিবরনী

শিরোনামহয়ে ওঠো একজন প্রবলেম সলভার
লেখকমুনেম শাহরিয়ার, রুহুল আমীন
ক্যাটেগরিইলেক্ট্রনিকস, রোবটিক্স
ISBN 978-984-8042-06-9
সংস্করনপ্রথম প্রকাশ, ফেব্রুয়ারী, ২০১৯
পৃষ্ঠাসংখ্যা২৯৬
কভার মূল্য৩৭০/- টাকা

লেখক পরিচিতি


মুনেম শাহরিয়ার

জন্ম ২৪ আগস্ট ১৯৯৬, সৈয়দপুরে। বাবা মঞ্জুরুল ইসলাম, মা শাহনাজ বেগম। বাবা মা দু’জনের চাকরির সুবাদে পড়া হয়েছে ৯টি স্কুলে। মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক পড়েছেন সৈয়দপুর ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল ও কলেজে। স্নাতক পড়ছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগে।

একাডেমিক লেখাপড়ার পাশাপাশি এক্সট্রা-কারিকুলার কাজকর্মে প্রচুর আগ্রহী। দেশের জন্য কাজ করতে চান। স্কুল জীবন থেকেই কাজ করে আসছেন বিভিন্ন সামাজিক প্রতিষ্ঠানের সাথে। স্কুল কলেজে বিতর্ক করেছেন, গান করেছেন, আবৃত্তি করেছেন, কাজ করেছেন ‘কলম পেন্সিল’ ম্যাগাজিন এবং ‘অপরাজিত’ সেবা সংগঠনের সাথে।

বিশ্ববিদ্যালয়ে এসে কাজ করেছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় আইটি সোসাইটি (RUITS),  স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিং (SCP),  রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় রোবোটিক্স ক্লাব (Robotics RU),  বিওয়াইএলসি গ্রাজুয়েট নেটওয়ার্ক (BGN),  রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় হাইয়ার স্টাডি ক্লাব (RUHSC) এবং ড্রিমস ফর টুমোরো (D4T)-এর সাথে।

কাজ করেছেন বাংলাদেশ বেতার রাজশাহী, বাংলাদেশ সেন্টার ফর কমিউনিকেশন প্রোগ্রামস (BCCP) এবং বাংলাদেশ ইয়ুথ লিডারশিপ সেন্টারের (BYLC) মতো প্রতিষ্ঠানের সাথেও। এছাড়াও কাজ করছেন গুডনিউজ নামের একটি অলাভজনক অনলাইন পত্রিকায়। গুডনিউজে (www.goodnews.org.bd) চারপাশে ঘটে যাওয়া সব ভালো খবরগুলো সংকলন করা হয়। ছোটোবেলার স্বপ্ন ছিল বিজ্ঞানী হবেন। বর্তমানে ক্যারিয়ারে লক্ষ্য একজন সফল উদ্যোক্তা (Entrepreneur) হওয়ার। দেশের জন্য বড়ো বড়ো স্বপ্ন দেখতে ভালবাসেন। আর সেই স্বপ্নকে বাস্তবে পরিণত করতে প্রচুর পরিশ্রম করতে ভালোবাসেন। বিশ্বাস করেন বাংলাদেশের ছেলেমেয়েরা একদিন বিজ্ঞান প্রযুক্তিতে বিশ্বসেরা হবে। সেই বিশ্বাসের ভিত্তিতে কাজ করে যাচ্ছেন আরডুইনো কমিউনিটি বাংলাদেশের সাথে দেশের স্কুলে স্কুলে প্রযুক্তি-শিক্ষা পৌঁছে দিতে। লেখকের সম্পর্কে আরও জানুন তার ওয়েবসাইট www.munemshahriar.com থেকে।

রুহুল আমীন

জন্ম ১১ আগস্ট ১৯৯৮, রাজশাহীতে। বাবা ড. মোহাঃ আজিজুল ইসলাম, মা জেসমিন আরা। শৈশব কৈশোর কেটেছে রাজশাহীতেই। মাধ্যমিক পড়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্কুলে এবং উচ্চমাধ্যমিক নিউ গভঃ ডিগ্রি কলেজে। স্নাতক পড়ছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগে।

ছোটোবেলা থেকেই ইলেকট্রনিক্স, কম্পিউটার ভক্ত। দেশের জন্য কাজ করতে চান ছোটোবেলা থেকে। পড়ালেখার পাশাপাশি কাজ করছেন গুগল ডেভেলপার গ্রুপ সোনারগাঁও (GDG Sonargaon), ড্রিমস ফর টুমোরো (D4T), রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় রোবোটিক্স ক্লাব (Robotics RU)-সহ অনেক অর্গানাইজেশনে।

বাংলাদেশে আরডুইনো চর্চা নিয়ে অনেক স্বপ্ন থেকে তৈরি করেছেন আরডুইনো কমিউনিটি বাংলাদেশ (www.arduinocommunity.org.bd)। তারা দেশের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আরডুইনো-চর্চা  ছড়িয়ে দিতে সাহায্য করে যাচ্ছে।

ক্যারিয়ারে একজন সফল উদ্যোক্তা হওয়ার স্বপ্ন দেখেন। উদ্যোক্তা (Entrepreneur) হওয়ার স্বপ্ন তাকে রাত দিন এক করে পরিশ্রমের অনুপ্রেরণা দেয়। নিজের সেই স্বপ্নকে ধরতে কাজ শুরু করেছেন নিজেদের একটি আইটি ফার্ম Exodia IT-এর মাধ্যমে। তার কাজ সম্পর্কে আরও জানতে ভিজিট করুন ameenruhul.exodiait.com।

Comments

comments